সু চির হাতে আর একটা সুযোগই আছে : জাতিসংঘ

সু চির হাতে আর একটা সুযোগই আছে : জাতিসংঘ

SHARE
There is last chance for Suu Kyi's, UN

রাখাইন রাজ্যে সেনা অভিযান বন্ধ করে রোহিঙ্গা সংকট নিরসনে মিয়ানমারের নেত্রী অং সান সু চির হাতে আর একটা সুযোগই আছে বলে মনে করছেন জাতিসংঘ মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস।

মিয়ানমারে রোহিঙ্গ নিধন বন্ধ করতে জাতিসংঘ ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে বলে অভিযোগ করে দুটি আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠন। এরপর থেকে যেন নড়েচড়ে বসে জাতিসংঘ। সেনা অভিযান বন্ধে মিয়ানমারের প্রতি আহবানও জানায় জাতিসংঘ। আবারো গতকাল সেনা অভিযান বন্ধে দেশটির ডি ফ্যাক্টো নেত্রী অং সান সু চির হাতে শেষ সুযোগ রয়েছে বলে উল্লেখ করেছেন জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস।

জাতিসংঘে চলতি সপ্তাহে অনুষ্ঠেয় সাধারণ পরিষদের অধিবেশনের আগে জাতিসংঘের মহাসচিব বিবিসিকে বলেন, মঙ্গলবার জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণেই সেনাদের সাঁড়াশি অভিযান বন্ধে শেষ সুযোগ পাবেন সু চি।

‘তিনি (সু চি) যদি অবস্থার পরিবর্তন না করেন, তাহলে আমি মনে করি এই ট্র্যাজেডি ভয়াবহ রূপ নেবে এবং এর পর নিরাশার সঙ্গে বলতে হবে, আগামী দিনে এই সমস্যা কীভাবে বদলাবে, তার দিশা আমি দেখছি না’, বলেন জাতিসংঘের মহাসচিব।

রোহিঙ্গাদের তাদের দেশে ফিরিয়ে নেয়া উচিত এবং মিয়ানমার সরকারকে তাদের আলাদা জাতি পরিচয়ও মানতে হবে বলে উল্লেখ করেছেন জাতিসংঘ মহাসচিব।

মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গারা বলছেন, সেনাবাহিনী রাখাইনে রোহিঙ্গা মুসলিমদের ওপর অমানবিক নির্যাতন চালাচ্ছে, নারীদের ধর্ষণ করছে, শিশু, বৃদ্ধ, যুবকদের এলোপাতাড়ি গুলি করে হত্যা করেছে। তারা গ্রামের বহু বাড়ি-ঘরে আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দিয়েছে।

রোহিঙ্গাদের নির্যাতনের কারণে শান্তিতে নোবেল পুরস্কারপ্রাপ্ত অং সাং সু চি বিশ্বজুড়ে সমালোচনায় পড়েছেন। এমনকি জাতিসংঘে চলমান সাধারণ অধিবেশনেও যোগ দিচ্ছেন না তিনি।

LEAVE A REPLY