শয্যা দৃশ্যে অভিনয়ে পাওলির আপত্তি

শয্যা দৃশ্যে অভিনয়ে পাওলির আপত্তি

SHARE
Paoli's objection to acting in the bed scene

অভিনয়ে নজর কেড়েছেন পাওলি দাম। ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে বেশ কিছু সিনেমায় খোলামেলা দৃশ্যে অভিনয় করে সমানভাবে সমালোচিতও হয়েছেন তিনি। এবার নিজেকে কিছুটা বদলে নিয়েছেন।

ভারত-বাংলার যৌথ প্রযোজনায় ‘মনের মানুষ’ ছবিতে অভিনয় করে বাংলাদেশি দর্শকদের প্রথম নজর কাড়েন তিনি। এরপর তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন অশ্লীল দৃশ্যে অভিনয় করার অভিযোগ উঠে। অবশ্য কোনো অভিযোগে পাত্তা দেননি পাওলি।

সম্প্রতি ভারতীয় গণমাধ্যমে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এই টালিউড অভিনেত্রী জানিয়েছেন, অন্তরঙ্গ দৃশ্যে আর অভিনয় করতে চান না। সবাই তাকে আইটেম দৃশ্যের অভিনেত্রী হিসেবেই ভাবতে শুরু করেছে। এটা তার জন্য বিব্রতকর।

২০১১ সালে শ্রীলঙ্কার পরিচালক বিমুক্তি জয়সুন্দরের ‘ছত্রাক’ ছবিতে অভিনয়ের জন্য বেশ আলোচনায় উঠে আসেন তিনি। সে সময় ‘ছত্রাক’ সিনেমায় শয্যা দৃশ্যে পাওলির অভিনয় বাংলা চলচ্চিত্র জগতে রীতিমত তুফান তুলে দেয়।

২০১২ সালে ‘হেট স্টোরি-২’ সিনেমা দিয়ে বলিউডে পথচলা শুরু হয় পাওলির। থ্রিলারধর্মী ছবিটিতে খোলামেলা দৃশ্যে অভিনয় করেন তিনি। এরপর বেশ কয়েকজন বলিউড নির্মাতা তাকে সিনেমায় অভিনয় করার প্রস্তাব দিয়েছেন। তবে সেগুলোতে অন্তরঙ্গ দৃশ্যে অভিনয় করতে হবে বলে রাজি হননি।

এছাড়া ‘এলার চার অধ্যায়’, ‘সব চরিত্র কাল্পনিক’,জুলফিকর’ সহ অনেক ছবিতেই ভিন্ন ধরনের চরিত্রে দেখা যায় পাওলিকে। যতবার তিনি সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়েছেন ততবারই উঠে এসেছে পাওলির  ঘনিষ্ঠ দৃশ্য বা শয্যা দৃশ্যে অভিনয়ের প্রসঙ্গ।

সম্প্রতি ‘ইন্ডিয়া টুডে’র সঙ্গে আলাপকালে পাওলি জানান, ‘ছত্রাক’, ‘হেট স্টোরি’ করার পর বারবার তার কাছে ওই ধরনের বোল্ড দৃশ্যে অভিনয়েরই প্রস্তাব আসে। এমনকি ‘জুলি-২’তেও অভিনয়ের প্রস্তাব আসে। তবে তিনি একই ধরনের চরিত্র করবেন না বলেই তা ফিরিয়ে দেন। কারণ হিসাবে তিনি বলেন সব ধরনের চরিত্রেই অভিনয় করতে চান তিনি।

পাওলি দাম বলেন, বলিউডের সবাই আমাকে আইটেম গানের অভিনেত্রী ভাবতে শুরু করেছে। বিষয়টি খুবই বিব্রতকর। আমি ভালো কিছু চরিত্রনির্ভর সিনেমায় অভিনয় করতে চাই।

বলিউডে প্রথম অভিজ্ঞতা ভালো হয়নি এই অভিনেত্রীর। পাওলি জানান, ‘হেট স্টোরি-২’ ছবিটিতে অভিনয় করার পর অনেকেই নাকি তার কাছে জানতে চাইতেন ‘বিছানার দৃশ্যে অভিনয় করতে কেমন লাগে?’ শট দেয়ার পর সেগুলো স্ক্রিনে দেখেন কিনা? বা নগ্ন দৃশ্যের মহড়া করেন কিনা?

এমন প্রশ্ন শুনে বেশ বিব্রত হতে হয়েছে তাকে। পরবর্তীতে নিজেকে বেশ বদলে নিয়েছেন। এখন আর তিনি অন্তরঙ্গ দৃশ্যে অভিনয় করে দর্শকের মাঝে জনপ্রিয়তা চান না, অভিনয় গুণে দর্শককে মুগ্ধ করতে চান।

এদিকে আরেকটি গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে শিগগিরই বিয়ের পিঁড়িতে বসতে যাচ্ছেন এই অভিনেত্রী। তার হবু বর চান না স্ত্রী পাওলি অন্তরঙ্গ দৃশ্যে অভিনয় করুক। হবু স্বামীর কথা রাখতেই পাওলির এমন নতুন সিদ্ধান্ত বলে মনে করছেন কেউ কেউ।