মটরশুটির যত গুণাগুণ

মটরশুটির যত গুণাগুণ

SHARE
Motorsuti

অনেকের কাছেই প্রিয় একটি সবজি মটরশুটি। বিভিন্ন খাবারের স্বাদ বাড়াতেও ব্যবহার করা হয় এটি। আমিষ সমৃদ্ধ এ সবজির সিদ্ধ করা সবুজ শুটি বিকেলের নাস্তায় বেশ জনপ্রিয়। মটরশুটি পুষ্টিকর ও সুস্বাদু একটি খাবার। মটরশুটির ডাল থেকে শুরু করে অনেক আইটেমে রান্না করে খাওয়া যায়। গরম ভাতের সাথে মটরশুটির ভর্তা অনেক মজাদার। আজকাল পারিবারিক অনুষ্ঠানের বিশেষ রান্নার আয়োজনে ও পরিপক্ক শুটি ডাল হিসেবে এদেশে অত্যন্ত জনপ্রিয় এই মটরশুঁটি। বিশেষভাবে শহরাঞ্চলে এ সবজির জনপ্রিয়তা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। আসুন জেনে নিই মটরশুটির যত গুণাগুণ-

প্রতি ১০০ গ্রাম মটরশুটি থেকে প্রায় ৮০ থেকে ১০০ কিলোক্যালোরি শক্তি পাওয়া যায়। এছাড়া পাওয়া যায় কার্বোহাইড্রেট ১৪.৫ গ্রাম, ফ্যাট ০.৫ গ্রাম ও প্রোটিন ৫.৪ গ্রাম। এছাড়া ক্যালসিয়াম, পটাসিয়াম, ম্যাগনেশিয়াম, আয়রন, ভিটামিন সি, ফলিক অ্যাসিড, বিটাক্যারোটিন, ভিটামিন এ, ফসফরাস, জিঙ্ক, ভিটামিন বি-কমপ্লেক্স থাকে। সামান্য পরিমাণে ভিটামিন কে-ও থাকে মটরশুটিতে।

মটরশুটি খুব পুষ্টিকর খাদ্য। এই সবজিতে বেশ ভালো পরিমাণে তন্তু থাকায় পেট পরিস্কার রাখে ও কোষ্ঠকাঠিন্য রোধ করে।

মটরশুটি রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা কমায়। অ্যান্টি অক্সিডেন্ট হিসেবে এই সবজি দারুণ কাজ করে ও শিশুদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।

ডায়াবেটিক রোগীরা মটরশুটি খেতে পারেন। এছাড়া এটি শরীরে হাড় শক্ত করতেও খুব ভালো। ফলিক অ্যাসিড থাকায় প্রসূতি মায়েরা মটরশুটি খেতে পারেন।

ত্বকের জন্যও মটরশুটি খুব উপকারি। ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায় ও চোখের দৃষ্টিশক্তিও বাড়িয়ে তোলে মটরশুটি।

 

LEAVE A REPLY