ইফতারের স্বাস্থ্যকর পানীয় পুদিনা লাচ্ছি

ইফতারের স্বাস্থ্যকর পানীয় পুদিনা লাচ্ছি

SHARE
Lasshi-Pudina

আমরা সচরাচর পান করি মিষ্টি লাচ্ছি কিংবা সল্টেড লাচ্ছি পান করে থাকি| এছাড়া  পান করি লেমন, ম্যাঙ্গো লাচ্ছি ইত্যাদি| কিন্তু পুদিনা  দিয়ে লাচ্ছি একটু অন্যরকম| টক দই একটি probiotic,যা হজমের জন্য খুবই ভালো| এই লাচ্ছিতে টক দইয়ের সাথে পুদিনা পাতা ব্যবহার করা হয়| আমরা জানি, পুদিনা পাতা একটি হার্ব, যা শরীরের জন্য ও হজমের জন্য খুবই ভালো|শরীর ঠান্ডা  করতে এক জুড়ি নেই| সেই সাথে টক দই মিলে হজমের জন্য আরো ভালো| সারাদিন রোজা রেখে এই  লাচ্ছি পান করলে হজমের সব সমস্যা দূর হয়ে যাবে|

পুদিনা পাতা একটি প্রাণ জুড়ানো, সতেজ কারক হার্ব| পুদিনা পাতার গন্ধ  নাকে আসলেই মন সতেজ হয়ে যায়| এটি পাকস্থলীর সমস্যা:যেমন: বদহজম, IBS(Irritable Bowel Syndrome),  heartburn ইত্যাদি  দূর করতে সাহায্য করে| Intestine এর মাসেল রিল্যাক্স করে, গ্যাস হওয়া থেকে রক্ষা করে ও হজম শক্তি  বাড়ায়| মাথা ব্যথা কমায় | ত্বকের জন্যেও এটি খুবই উপকারী| কফ ও Asthma  দূর করতে এটি খুব কাজে দেয়| এটি আন্টি ক্যান্সার  বা ক্যান্সার রোধী| এটি আমাদের দাঁত ও মুখের জন্যও খুবই ভালো| এছাড়া পুদিনা immune system  শক্তিশালী করে| কারণ এতে কিছু পুষ্টি উপাদান,  যেমন: phosphorus, calcium, vitamin C, D, E,  এবং  অল্প vitamin B complex আছে| এটি আমাদের  শরীরকে infections ও  inflammations হতে রক্ষা করে| এটি  ফাঙ্গাস ও ব্যাকটেরিয়া হতেও আমাদের শরীরকে রক্ষা করে|

তাই আসুন জেনে নিই এত গুনের পুদিনা সম্বলিত লাচ্ছির রেসিপিটি:-

প্রয়োজনীয় উপকরণ:

টক দই –২ কাপ

পুদিনা পাতা কুচি – এক গুচ্ছ

বিট লবন –১/২ চা চামচ

চিনি –পরিমানমতো বা জিরোক্যাল এক প্যাকেট

জিরাগুড়া–এক চা চামচ

পানি-১/২ কাপ

পুদিনা পাতা –সাজানোর জন্য

প্রস্তুত প্রণালী: সব উপকরণ ব্লেন্ডারে নিয়ে ভালো মতো ব্লেন্ড  করুন| তারপর ফ্রিজে রেখে উপরে পুদিনা পাতা দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করুন রিফ্রেশিং  পুদিনা লাচ্ছি|

মিষ্টি লাচ্ছি না চাইলে চিনি বাদ দিতে পারেন| ঝাল খেতে চাইলে  কাঁচামরিচ দিতে পারেন| বিট লবন বেশি চাইলে তাও দিতে পারেন|বিট লবনের পরিবর্তে লবনও দেয়া  যায়|

এই পানীয়টি তৈরী করে পান করে দেখুন কেমন লাগে| অবশ্যই তৃষ্ণা  নিবারক ও সতেজ কারক| আর রোজার দিনে পানি শুন্যতা ও হজমের সমস্যা দূর করতে তো এর জুড়ি  নেই|

রোজার দিনে ক্ষুধার চাইতে তৃষ্ণাই বেশি লাগে| তাই এ সময়ে সহায়ক হতে পারে পানীয়ের রেসিপি