আইফোন-৭ এর যন্ত্রাংশের মূল্য ২৯২ ডলার, বিক্রি ৭৪৯ ডলার!

আইফোন-৭ এর যন্ত্রাংশের মূল্য ২৯২ ডলার, বিক্রি ৭৪৯ ডলার!

SHARE
iPhone 7 price
অ্যাপলের আইফোন ৭ এর ১২৮ জিবি ডিভাইস মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে বিক্রি হচ্ছে ৭৪৯ ডলারে। অথচ সিএনএন মানি জানিয়েছে যে সমস্ত যন্ত্রাংশ ব্যবহার করে আইফোন ৭ তৈরি করা হয়েছে তার বাজারমূল্য সর্বসাকুল্যে ২৯২ ডলার!
নতুন রেটিনা এইচডি ডিসপ্লে ব্যবহার করা হয়েছে আইফোন ৭-এ। আগের তুলনায় এই ডিসপ্লে ২৫ শতাংশ বেশি উজ্জ্বল। এছাড়াও ৩ডি টাচ ফিচার রয়েছে এতে। টেক যন্ত্রাংশ বিষয়ক ওয়েবসাইট টিয়ারডাউন ডট কম ও চিপওয়ার্ক্স এর বরাত দিয়ে সিএনএন মানি জানিয়েছে ওই ডিসপ্লের বাজারমূল্য ৩৭ ডলার। নতুন আইফোন ৭ এর ব্যাটারি আগের তুলনায় দীর্ঘস্থায়ী। আইফোন ৬এস এর চেয়ে আইফোন ৭ আরও ২ ঘন্টা এবং আইফোন ৬এস প্লাসের চেয়ে আইফোন ৭ প্লাস এক ঘন্টা বেশি দীর্ঘস্থায়ী। এই ব্যাটারির বাজারমূল্য ৪ ডলার।
আগের থেকে উন্নত ১২ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা ব্যবহার করা হয়েছে আইফোন ৭-এ। এই ক্যামেরা আগের তুলনায় ৬০ শতাংশ দ্রুত ছবি তুলতে পারে এবং ৫০ শতাংশ বেশি আলো ধারণ করতে পারে। এর সঙ্গে এতে ডুয়াল টোন ফ্ল্যাশ ব্যবহার করা হয়েছে এতে। আইফোন ৭ প্লাস সংস্করণে আরও কিছুটা ভিন্নতা আনা হয়েছে এর ক্যামেরায়। এক্ষেত্রে দুইটি ১২ মেগাপিক্সেল সেন্সর ব্যবহার করা হয়েছে ফোনটিতে। বাড়তি একটি ১২ মেগাপিক্সেল টেলিফটো সেন্সর ব্যবহার করা হয়েছে। যার ফলে এটি দিয়ে সফটওয়্যার জুমের পরিবর্তে অপটিক্যাল জুম দিয়ে ছবি তোলা সম্ভব। এর পাশাপাশি সামনে ৭ মেগাপিক্সেল এইচডি ক্যামেরা রয়েছে ফোন দু’টিতে। এই ক্যামেরার বাজারমূল্য ২৬ ডলার।
এছাড়া লজিক বোর্ডের দাম ধরা হয়েছে ৭৪ ডলার, স্পিকার ১১.৫০ ডলার, কেসিং ২২ ডলার এবং অন্যান্য যন্ত্রাংশের দাম সর্বসাকুল্যে ১১৭.৫০ ডলার। সব মিলিয়ে ফোনটির সব যন্ত্রাংশের মূল্য ২৯২ ডলার। কিন্তু আইফোন ৭ এর ১২৮ জিবি ডিভাইসের দাম ধরা হয়েছে ৭৪৯ ডলার।
অত্যধিক দাম স্বত্ত্বেও আইফোন ৭ বিক্রি বেড়েই চলেছে। এই বছর অ্যাপল বরাবরের মতো সপ্তাহান্তে ডিভাইস বিক্রির পরিমাণ প্রকাশ করছে না। টেক বিশেষজ্ঞরা ধারণা করছেন এই বছরের শেষ পর্যন্ত ১০ কোটি আইফোন ৭ ডিভাইস বিক্রি করতে সক্ষম হবে অ্যাপল। সিএনএন মানি ও টেক ক্রাঞ্চ।
ইত্তেফাক/এসএসএ